ফ্রান্সে মে দিবসের শোভাযাত্রায় সহিংসতা

ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে ‘মে দিবসের র‌্যালি থেকে সহিংসতা ঘটনা ঘটেছে। এ সময় সহিংসতাকারীরা রাস্তার পাশে থাকা গাড়ি ও দোকানে আগুন ধরিয়ে দেয়।

প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর পাবলিক সেক্টরে শ্রমিকদের মর্যাদা পুনর্গঠনের প্রতিবাদে শ্রমিক ইউনিয়ন আয়োজিত ওই বিক্ষোভ-সহিংসতায় এক পুলিশসহ চারজন আহত হয়েছেন।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে প্রায় ২শ’ জনকে আটক করেছে পুলিশ। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ আনতে তারা টিয়ারসেল, স্প্রে ও জলকামান ছোঁড়ে।

Protest-1

ব্ল্যাক ব্লকস নামে পরিচিত উগ্র বাম নৈরাজ্য সৃষ্টিকারী একটি গ্রুপ র‌্যালিতে কালো পোশাক ও মুখোশ পরে ঢুকে পড়ে এ সহিংসতার ঘটনা ঘটায়। এ সময় তারা ম্যাকডোনালসের একটি রেস্তোরাঁ, একটি গাড়ির দোকানসহ বেশ কয়েকটি দোকান ভাঙচুর ও গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেয়।

ফান্সের পুলিশ বিভাগ জানিয়েছে মুখোশ পরিহিত প্রায় ১২শ’ বিক্ষোভকারী মে দিবসের ওই শোভাযাত্রায় অংশ নিয়েছিল।

এদিকে মুখোশ পরে বিক্ষোভে অংশ নেয়ার সমালোচনা করেছেন ফ্রান্স সরকারের মুখপাত্র বেঞ্জামিন গ্রেভাক্স।

বিক্ষোভকারীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘বিশ্বাস আন্তরিক হলে তারা মুখোশ ছাড়াই বিক্ষোভে অংশ নিতো। যারা মুখ ঢেকে অংশ নিয়েছেন তারা গণতন্ত্রের শত্রু’।

Protest-3

ম্যাক্রোঁর পুনঃগঠন পরিকল্পনা নিয়ে সম্প্রতি ফ্রান্সে ব্যাপক অসন্তোষ দেখা দিয়েছে। বিগত তিনমাস ধরে দেশব্যাপী ধর্মঘট করছেন রেলশ্রমিকরা। এরই মধ্যে গত মাসে (মার্চ) তাদের সঙ্গে যোগ দেন কয়েক হাজার শিক্ষক, নার্সসহ অন্য শ্রমিকরা। তবে নিজের পরিকল্পনা এগিয়ে নেয়ার সিদ্ধান্তে অটল থাকার কথা জানিয়েছেন ম্যাক্রোঁ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*