সিরিয়ায় তুর্কি অভিযানে নিহত ১০

 সিরিয়ায় তুর্কি অভিযানে নিহত ১০

সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলীয় আফরিন এলাকায় শনিবার তুর্কি অভিযানে ১০ জন নিহত হয়েছে। যুদ্ধবিমান দিয়ে আকাশপথে ও ভারী অস্ত্র নিয়ে স্থলপথে এ হামলা চালানো হয়। নিহত ব্যক্তিদের বেশির ভাগই বেসামরিক নাগরিক।

এএফপির খবরে জানানো হয়, মূলত কুর্দি মিলিশিয়া দমনে তুরস্ক এ অভিযান চালায়। সিরীয় বিদ্রোহীরা তাদের সহযোগিতা করে। কুর্দিরা ওই এলাকা নিয়ন্ত্রণ করছে। কুর্দি মিলিশিয়াদের পক্ষ থেকে একজন মুখপাত্র এ তথ্য জানান। তুরস্ক বলছে, কুর্দি জঙ্গিদের দমনে তারা এ অভিযান চালিয়েছে।
কুর্দি মিলিশিয়া দল কুর্দিশ পিপল’স প্রোটেকশন ইউনিটের (ওয়াইপিজি) মুখপাত্র বিরুসক হাসাকেহ বলেন, তুর্কি হামলায় একজন শিশুসহ সাতজন বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়। এ ছাড়া দুজন নারী যোদ্ধা ও একজন পুরুষ যোদ্ধা নিহত হয়। শিশুটি আট বছরের বালক।
ওয়াইপিজির রাজনৈতিক শাখা ডেমোক্রেটিক ইউনিয়ন পার্টি (পিওয়াইডি) জানায়, শনিবার সকালে তুর্কি বোমা হামলায় ২৫ জন বেসামরিক নাগরিক আহত হয়েছে। আঙ্কারা বলছে, তাদের এ অভিযানে হতাহতের ঘটনা ঘটেছে। তবে তারা সবাই কুর্দি জঙ্গি।
সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলীয় আলেপ্পো প্রদেশের ভেতর আফরিন একটি পাহাড়ি এলাকা। সেখানে ১০ লাখের বেশি মানুষের বাস। এর মধ্যে বাস্তুচ্যুত পরিবারের মানুষও রয়েছে। শনিবার সেখানে তুর্কি সেনা ও তাদের মিত্র সিরীয় বিদ্রোহীরা একযোগে বিমান ও স্থল অভিযান শুরু করে। অভিযানের নাম দেওয়া হয়েছে ‘অলিভ ব্রাঞ্চ’। কুর্দিদের ক্ষমতা খর্বে ওয়াইপিজিকে উৎখাতের লক্ষ্যে তারা এ অভিযান শুরু করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*